Thursday, June 30th, 2022




শিক্ষক হত্যা ও হেনস্তা: বিক্ষোভে ফুঁসছে দেশ

শিক্ষক হত্যা ও হেনস্তা: বিক্ষোভে ফুঁসছে দেশ

কালের সংবাদ ডেস্কঃ সাভারের আশুলিয়ার হাজী ইউনুছ আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষক উৎপল কুমার বিশ্বাসকে স্টাম্প দিয়ে পিটিয়ে হত্যা এবং নড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসকে জুতার মালা পরিয়ে হেনস্তার ঘটনায় দেশজুড়ে বিক্ষোভ সমাবেশ, মানববন্ধন, অনশন অব্যাহত আছে।

এই দুই ঘটনায় হত্যাকারী ও হেনস্তাকারীদের গ্রেপ্তারের দাবিতে গতকাল বুধবার আমরণ অনশন শুরু করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, বেসরকারি গ্রিন ইউনিভার্সিটি, সাউথ ইউনিভার্সিটি এবং তেজগাঁও কলেজের অন্তত ১০ জন শিক্ষার্থী।

গতকাল বিকেল ৩টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাসবিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে তাঁরা অনশনে বসেন। হত্যাকারী গ্রেপ্তার না হওয়া পর্যন্ত তাঁরা আমরণ অনশন চালিয়ে যাবেন বলে জানান।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী নাইম ইসলাম বলেন, ‘আমরা এই অনশনটি করছি একটা উদ্দেশ্যেই, শিক্ষকের মর্যাদা রক্ষায়। আমাদের সমাজে শিক্ষকরা যেভাবে নির্যাতিত হচ্ছেন, তার বিরুদ্ধে রুখে না দাঁড়ালে আরো করুণ পরিণতি হবে, জাতি ধ্বংসের দিকে যাবে। ’

এদিকে এই ঘটনা ও নড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসকে হেনস্তার ঘটনায় দোষীদের গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিল করেছে বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশন।

গতকাল বিকেল ৪টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ডাস চত্বরে বিক্ষোভ সমাবেশ করে মিছিল নিয়ে ভিসি চত্বর, রাজু ভাস্কর্য ঘুরে টিএসসির পায়রা চত্বরে এসে শেষ হয়।

এদিকে শিক্ষক উৎপল কুমার বিশ্বাসের হত্যাকারী গ্রেপ্তার না হওয়া পর্যন্ত হাজী ইউনুছ আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজে পাঠদান বন্ধ রাখার ঘোষণা দিয়েছেন ওই প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। কর্মসূচির অংশ হিসেবে গতকাল সকাল থেকে হাজী ইউনুস আলী কলেজের শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেন। মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা বলে, বৃহস্পতিবার সবচেয়ে বড় কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়েছে। সাভার উপজেলার সব স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় সাভার উপজেলা চত্বরে উপজেলার সব স্কুল এবং কলেজের শিক্ষক, শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করবে।

কর্মসূচিতে অংশ নেওয়া হাজী ইউনুছ আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ সাইফুল হাসান বলেন, ‘আমরা আর পিছপা হব না। আমার প্রতিষ্ঠানে প্রায় ৪০ জন শিক্ষক। যাঁরা দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পাস করে এসেছেন। আমাদের প্রিয় শিক্ষককে হত্যা করা হয়েছে। তাঁর শরীরের রক্তের দাগ এখনো মুছে যায়নি। আর কোনো ছাড় নেই। বখাটেদের প্রতিহত করতে আমরা সব ব্যবস্থা নেব। ’

এদিকে নড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষকে হেনস্তার ঘটনার প্রতিবাদে নড়াইলের বিভিন্ন স্থানে প্রতিবাদ সমাবেশ ও মানববন্ধন অব্যাহত আছে। নড়াইল পৌর মেয়র আঞ্জুমান আরাকে সভাপতি, ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি অ্যাডভোকেট নজরুল ইসলামকে সাধারণ সম্পাদক করে গঠিত হয়েছে সম্প্রীতি মঞ্চ।

একে  আরিফ/

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category