মালিতে হামলায় ৯৫ জন নিহত

আন্তর্জাতিক অনলাইন ডেস্ক: পূর্ব আফ্রিকা অঞ্চলের দেশ মালির একটি গ্রামে হামলা চালিয়ে অন্তত ৯৫ জনকে হত্যা করেছে অজ্ঞাতনামা দুর্বৃত্তরা।

সরকারি কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা এপি জানিয়েছে, মালির মধ্যাঞ্চলের দোগোন আদিবাসী গোষ্ঠী অধ্যুষিত একটি গ্রামে এই হামলার দায় এখনো স্বীকার করেনি কোনো গোষ্ঠী।

এর আগে গত মার্চে মালির পিউল নামে একটি গ্রামে স্থানীয় দোগোন মিলিশিয়ার বিরুদ্ধে অন্তত ১৫৭ জনকে হত্যা করার অভিযোগ আছে। গতকাল সোমবার মালি সরকার দোগোন অধ্যুষিত গ্রামের এই হত্যাকাণ্ডের খবর স্বীকার করে। মালির বিভিন্ন এলাকায় এমন ক্রমবর্ধমান জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হচ্ছে দেশটির আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

মালির অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র আমাদু সাঙ্ঘো জানান, সোমবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে দোগোন অধ্যুষিত গ্রামের সোবামে দা এলাকায় হামলা চালায় দুর্বৃত্তরা। এর পর থেকে অন্তত ১৯ গ্রামবাসী নিখোঁজ আছে। সরকারের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, গ্রামের বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে এবং গবাদিপশু জবাই করা হয়েছে। গত মার্চের কথিত হত্যাকাণ্ডের হোতা দোগোন মিলিশিয়ার মূল আস্তানা এই গ্রামে। মার্চের ওই হামলার পর কয়েকজন পিউল নেতা প্রতিশোধ নেওয়ার কথা জানিয়েছিলেন। তাই প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, দোগোন মিলিশিয়ার কথিত হত্যাকাণ্ডের প্রতিশোধ নিতেই সোমবারের এ হামলা। তবে দান না অ্যামবাসাগু নামধারী ওই দোগোন মিলিশিয়ার প্রধান ইউসুফ তোলোবো হামলা চালানোর কথা অস্বীকার করে আসছিলেন।

এদিকে, সোমবারের হামলার পর নিন্দা জানিয়েছে তাবিতাল পুলাকু নামে পিউলের একটি প্রভাবশালী গোষ্ঠী। এ ছাড়া একের পর এক এ ধরনের ঘটনা নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হওয়া সরকারেরও সমালোচনা করে তারা।

কয়েক মাস ধরেই মালিতে এমন হামলার ঘটনা ঘটছে। আদিবাসী ও ইসলামী জিহাদি গোষ্ঠীগুলো এসব হামলা চালাচ্ছে।

এম কে ইসলাম/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category