“তবুও তাকে বলেছিলাম”

—ইখতিয়ার উদ্দীন আজাদ—

তবুও তাকে বলেছিলাম-
আরো একবার ভেবে দেখো;
বলেছিলাম আমাদের অনাগত ভবিষ্যৎ-
মুখ তুলে চেয়ে আছে আমাদের পানে;
একটু ধৈর্য ধরো;
আরো একবার ভেবো দেখো-
এভাবে’ই একানব্বই বার-
আনুষ্ঠানিক লিখিত বক্তব্যে জানায়েছিলাম তাকে;
বলেছিলাম আমি- প্রিয়,
আমারও কিছু স্বপ্ন আছে- তোমাকে নিয়ে,
কিছু ভবিষ্যৎ রচনা করি চলো’না-একসাথে,
আহবান – আর আহবান – সম্পর্ক; ধরে রাখার প্রচেষ্টা;
কি জানি;-কি স্বপ্ন ছিলো তার ;
আকাশ ছোঁয়া স্বপ্ন- জমিনে পা ফেলে নক্ষত্রে যাবে চলে-
অদ্ভুত- অসম্ভব -অদেখা – অজানা স্বপ্নগুলো ভিড়
জমায়েছিলো তার -অন্তরে;
এতো বিলাসী স্বপ্ন যার অন্তরে সন্তরে –
তাকে কি আর ধরে রাখা যায়?
তবুও বলেছিলাম;- দেখো?
একদিন আমি তারকার মতো জ্ব’লে উঠবো
আমার আঙিনায় সুখের জোনাকিরা -দলবেঁধে ছুটে আসবে…
খেলা করবে তোমার চারপাশে –
আনন্দ এখন যা আছে তার চেয়েও বেশি-
রঙিন রঙ বারতায়- ছেঁয়ে যাবে তোমার চারপাশ,
মাত্র’তো কটা দিন- একটু অপেক্ষা করো
আমাদের অনাগত ভবিষ্যৎ তাঁকায়ে -তাকে সুযোগ করে দাও,
কি চেষ্টা’টা না আমি করেছি;
সামাজিক-রাজনৈতিক-ধর্মীয়-শিল্প-সাহিত্য-সাংস্কৃতিক কলাকৌশল!
যত উপকরণ আর উপমা ছিলো –
একে একে সব-
প্রয়োগ করে দেখলাম-
কে শুনে কার কথা?
সে চলে’ই যাবে – কি নাকি স্বপ্ন আছে !
ব্যর্থ আমি – সে চলে’ই গেলো;
যে যেতে চায় তাকে কি আর ধরে রাখা যায়?
তাকে ঘিরে যে ভবিষ্যৎ রচনা করেছিলাম

সবটাই সে প্রমাণ করলো ভুল;
আজ আমি এখানে দাঁড়ায়ে-
রাতের তারকার মতো জ্ব’লে উঠেছি-
আমার জগতে কতো স্বপ্ন খেলা করে –
তার হিসেব রাখিনি;
আকাশ কুসম স্বপ্ন আমার ছিলোনা-
যা ছিলো ;-
বাস্তব সম্মত-বিজ্ঞান ভিত্তিক-
যৌক্তিক কল্যাণকর।
আমি’তো আমার কাঙ্খিত স্বপ্ন ছুঁয়ে দেখেছি;
বন্ধু? তুমি আজ কোথায়?
দিঘির জলে স্নান করো-নির্বাক কন্ঠে বেদনার গান করো,
আউল -বাউল পথে আরো কতোকিছু শুনি-
নির্জন নিভৃতে-নিরালায় কতো ঝরে পড়ে তোমার দীর্ঘশ্বাস;
এই-কি তোমার স্বপ্ন?
এই-কি তোমার বিশ্বাস?

 

এম কে ইসলাম/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category