জীবন বাঁচাতে প্রধানমন্ত্রীর সাহায্য চান ক্রিকেটার-কোচ আমির বাবু

খেলার খবরঃ সাবেক ক্রিকেটার ও কোচ আমিরুজ্জামান বাবুর দু’টি কিডনিই নষ্ট হয়ে গেছে। এমতাবস্থায় জীবন বাঁচাতে কিডনি প্রতিস্থাপনের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহায়তা কামনা করেছেন এই ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব।গুরুতর অসুস্থ আমির বাবু বলেন, ‘আমি জীবনযুদ্ধে পরাজিত হতে চাই না। আমি বাঁচতে চাই এবং মাঠে ফিরে দেশের ক্রিকেটকে আরও সামনের দিকে নিয়ে যেতে চাই। তাই আমি কিডনি প্রতিস্থাপনের জন্য ক্রিকেট প্রেমি প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা কামনা করছি।

’৮০-র দশকের অন্যতম সেরা ফার্স্ট বোলার, ঢাকা আজাদ বয়েজ ক্লাবের সাবেক ক্রিকেটার এবং মাদারীপুরের ক্রীড়াঙ্গনের পরিচিত মুখ আমির বাবু। তিনি ১৯৮৫-৮৬ থেকে ১৯৮৭-৮৮ মৌসুমে ঢাকা আজাদ বয়েজ ক্লাবের হয়ে খেলেন এবং ১৯৮৭-৮৮ মৌসুমে তার ক্লাব প্রথম বিভাগ ক্রিকেট লীগ থেকে প্রিমিয়ার ক্রিকেট লীগে উন্নীত হয়।আজাদ বয়েজ ক্লাবের হয়ে তিন বছরে তিনি ৬৯ উইকেট লাভ করেন। ১৯৮৭ সালে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হয়ে খেলেন। ওই বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় উইলস ন্যাশনাল ক্রিকেট লীগে অপরাজিত চ্যম্পিয়ন হয়।

আমির বাবু ১৯৮৮ সালে এশিয়া কাপ ক্রিকেটের জন্য জাতীয় দলে ডাক পান। কিন্তু ১৯৮৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে কিডনি জনিত অসুস্থতা দেখা দেয়ায় তিনি পরে আর জাতীয় দলের হয়ে খেলতে পারেননি। দীর্ঘদিন যাবৎ ক্রনিক কিডনি ডিজিজে (সিকেডি) ভোগার পর গত এপ্রিল মাস থেকে প্রতি সপ্তাহে তিন বার তাকে ডায়ালাইসিস করতে হচ্ছে।
মাদারীপুর ক্রিকেট ক্লিনিকের সাধারণ সমন্বয়কারী আমির বাবু বাসস’কে জানান, কিডনি প্রতিস্থাপনের জন্য ভারতের চেন্নাইয়ের একটি হাসপাতালের সাথে তিনি যোগাযোগ করেছেন।

৫১ বছর বয়সী এই ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব বলেন, ‘হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ আমাকে কমপক্ষে ২০ লাখ টাকার ব্যবস্থা করতে বলেছে। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত আমার এই বিশাল অঙ্কের টাকা জোগানোর সাধ্য নাই।’কিডনি জনিত রোগে আক্রান্ত হওয়া সত্ত্বেও ক্রিকেটার তৈরির কাজে পিছপা হননি, বরং মাদারীপুর ক্রিকেট ক্লিনিকের মাধ্যমে ক্রিকেটার তৈরির কাজকে এগিয়ে নিয়ে গেছেন।বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের নির্বাচন ও সাবেক তারকা খেলোয়াড় হাবিবুল বাশার সুমন, বিকেএসপি’র প্রধান কোচ এম. হাসান প্রমুখ ক্রিকেটাররা আমির বাবুর হাতে গড়ে উঠেছেন।মাদারীপুর ক্রিকেট ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আমির বাবু প্রশিক্ষণের পাশাপাশি বহু ক্রিকেটারকে ঢাকার বিভিন্ন ক্লাবে খেলার সুযোগ করে দিয়েছেন, সহযোগিতা করেছেন।

তিনি ১৯৮৯ সালে মাদারীপুর ক্রিকেট ক্লিনিক প্রতিষ্ঠা করেন এবং গত তিন দশকে ১ হাজার ২শ’ ক্রিকেটারকে প্রশিক্ষণ দিয়েছেন।আমির বাবুর স্ত্রী তাহমিনা সুলতানা স্বামীর কিডনি প্রতিস্থাপনে সহায়তার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং সমাজের বিত্তবানদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন।আর্থিক সহায়তা পাঠানো ঠিকানা: মো. আমিরুজ্জামান আমির বাবু, হিসাব নং-০০৪৮০৩১০০০০০৪৩, এনসিসি ব্যাংক লি., মাদারীপুর শাখা, মাদারীপুর।

 

এম কে ইসলাম/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category