করোনা প্রতিরোধে ”ভয় নয় সচেতনতায় জয়” সেই লক্ষে নিরাপদে বাড়িতে থাকার আহ্বান মেয়র লিটনের

মোঃ আনিছুর রহমান, বেনাপোল, যশোর: গোটা পৃথিবী জুড়ে চলছে করোনা ত্রাস। সেই সাথে বাংলাদেশ ও আছে শঙ্কিত। সেই সাথে বড় ত্রাসে আছে দেশের গুরুত্ব পুর্ন প্রবেশদ্বার বেনাপোল সীমান্ত বাসী। প্রতিদিন এখন এ পথ দিয়ে কমবেশী ল্কো ভারত থেকে আসছে। এবং তারা এই জনপদের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেনটাইনে থাকছে। ভয় নয় সচেতনাতায় জয় এই লক্ষে বেনাপোল পৌর মেয়র এই জনপদের সকল মানুষকে নিরাপদে বাড়িতে থেকে করোনা প্রতিরোধের আাহ্বান জানাল। ইতি মধ্যে তিনি নিজ তদারকিতে সীমান্ত শহর পরিস্কার পরিচ্ছন্নতার কাজ অব্যাহত রেখেছে।

সারা বিশে^ যখন করোনা নিয়ে মানুষ আতঙ্কিত ; তথন বেনাপোল পৌর মেয়র আশরাফুল আলম লিটন গত ২৪ মাচর্ থেকে এই শহরের চেকপোষ্ট থেকে প্রতিটি জায়গায় ২০ জন পরিচ্ছন্ন কর্মী লাগিয়েছে হেক্সোসল ছিটাতে। ২০ টি স্প্রে মেশিন নিয়ে এসব কমীরা বেনাপোল পৌর মেয়র এর নির্দেশনা মোতাবেক প্রতিদিন জীবানু নাশক হেক্সোসল ছিাটাচ্ছে। এর মধ্যে বেনাপোল চেকপোষ্ট ইমি্েরগশন, বিজিবি ক্যাম্প, উদ্ভিদ ও সংগোনিরোধ অফিস, আন্তর্জাতিক প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল, সহ বেনাপোল বন্দরের সকল সরকাররি বেসরকারী অফিস , প্রতিটি বাড়ি এবং যানবাহনে করোনা প্রতিরোধে জীবানু নাশক ওষধ অব্যাহত রেখেছে।

বেনাপোল পৌর আওয়ালীলীগ যুযবলীগের আহবায়ক সুকুমার দেবনাথ বলেন, বেনাপোল পৌর মেয়র আশরাফুল আলম লিটন শুধু এই শহরে করোনা প্রতিরোধে জীবনুনাশক ওষধ ছিটাচ্ছে না। তিনি ইতিমধ্যে প্রায় ৫ হাজার পরিবারকে এক সপ্তাহের খাবার দিয়ে সহায়তা করেছে। তিনি আবারও এসব ঘরবন্দী মানুষকে খাবার দিবে যদি দুর্যোগ না কাটে তার ব্যবস্থাও করছেন। এছাড়া তিনি খোলা রেখেছেন স্বেচ্ছাসেবকদের মোবাইল নাম্বার। যেখানে খাবার কস্ট সেখানে মোবাইল অথবা মেসেঞ্জার মারফত জানতে পারলে সাথে সাথে দেরী না করে ওই ঠিকানায় পৌছে দিবে খাবার।

শার্শা উপজেলা আওয়ামলীলীগের দপ্তর সম্পাদক আজিবর রহমান বলেন, মানবতার সেবায় মেয়র লিটনের তুলনা করে খাট করা যাবে না। তিনি সবসময় সব দুর্যোগে এই জনপদের মানুষকে ভাল রাখার জন্য যা কিছু প্রয়োজন তাই করে থাকে। তিনি চায় এই শহরের মানুষ ভাল থাকলে তিনিও ভাল থাকবেন। তাই তার নিরলস প্রচেষ্টায় সীমান্তের এই গুরুত্ব পুর্ন প্রবেশদ্বারে জীবানু নাশক ওষধ ছিটানো ঘরবন্দী মানুষের খাবার ব্যবস্থা আবার যারা ভারত থেকে এসে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে এই শহরে থাকছে প্রশাসনের সাথে তাদের দেখ ভাল সহ সার্র্বোক্ষনিক মাঠে কাজ করে যাচ্ছে।

এস ইসলাম/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category