আট বছরের এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ ও হত্যা

মাতলুব হুসাইন, সাতক্ষীরা:  সাতক্ষীরা আশাশুনি উপজেলার গাবতলা গ্রামে তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষনের পর লাশ গুমের চেষ্টা করে প্রতিবেশী জয় প্রকাশ সরকার (১৭) নামে এক যুবক।

জানা যায় একই গ্রামের প্রশান্ত দাশ এর কন্যা তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্রী সুস্মিতা দাশ (৮) প্রাইভেট পড়ার উদ্দেশ্যে একই গ্রামের নির্মল সরকারের পুত্র জয় প্রকাশ সরকারের নিকট আসে, সন্ধার পরও সুস্মিতা বাড়িতে ফিরে না আসায় সুস্মিতা দাশ এর পরিবারের লোকজন সুস্মিতাকে খোঁজাখুজি করতে থাকে। সুস্মিতার কোন সন্ধান না পেয়ে আশাশুনি থানা পুলিশকে সংবাদ দিলে থানা পুলিশের সহায়তায় ইং-০৭/০১/১৯ তারিখ রাত ১টার দিকে জয় সরকার এর বাড়ীর পিছনের টয়লেটের সেফটি ট্যাংকের ভিতর হইতে সুস্মিতার মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ ।
 সুস্মিতার লাশটি ময়না তদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করা হয়।পুলিশ জয় প্রকাশ সরকারকে সন্দেহ হওয়ায় তাহাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে আসে, জিজ্ঞাসাবাদে সে স্বীকার কারে সে তার নিজের বাড়ীর পিছনে সুস্মিতাকে ধর্ষণ করে মৃত্যু ঘটানোর পর পার্শ্ববর্তী পুকুরে তার লাশ ফেলে দেয় এবং কিছুক্ষন পরে পুকুরের পার্শ্বে টয়লেটের সেফটিক ট্যাকং এর মধ্যে সুস্মিতার লাশ লুকিয়ে ফেলে।
জয় প্রকাশ সরকারকে সাথে নিয়া আশাশুনি থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে জয় প্রকাশ তার নিজ বাড়ীর কাঠঘরে লুকানো ভিকটিম সুস্মিতার গায়ে থাকা জামা, জ্যাকেট ও স্যান্ডেল সহ সুস্মীতার লাশ উদ্ধার কর। পরবর্তীতে সুস্মিতার মা বাদী হয়ে জয় প্রকাশ সরকার এর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করলে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের একটি মামলা রুজু করা হয়।
এম কে ইসলাম/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category